Tuesday, September 26, 2017

নিউইয়র্ক : হারিকেন ইরমার ভয়ংকর রূপ জানিয়ে সর্বসাধরণের প্রতি মায়ামী-ডেড কাউন্টি মেয়র কার্লোজ। ছবি-এনআরবি নিউজ।

এনআরবি নিউজ, নিউইয়র্ক থেকে : ৬০ হাজারের অধিক বাংলাদেশীসহ ফ্লোরিডা, সাউথ ক্যারলিনা এবং জর্জিয়া অঙ্গরাজ্যের ৫০ লক্ষাধিক আমেরিকান ভয়ংকর হারিকেন ‘ইরমা’ আতংকে রয়েছে। বাংলাদেশী অধ্যুষিত সাউথ ফ্লোরিডার সকল মানুষকে নিরাপদ আশ্রয় যেতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। সারা অঙ্গরাজ্যে জরুরী অবস্থা জারির পর রাজ্য গভর্ণর রিক স্কট নাগরিকদের উদ্দেশ্যে বলেছেন, ‘আঘাত হানার আশংকা রয়েছে, এমন সিটির কেউ যেন ঘরে না থাকেন। শনিবার রাতে শুরু হবে ইরমার তান্ডব।’ সাউথ ক্যারলিনার গভর্ণর হেনরী ম্যাকমাস্টার স্মরণকালের ভয়ংকর এ হারিকেনের আঘাত হানার সম্ভাব্য সিটিসমূহে জরুরী অবস্থা ঘোষণা করেছেন। একইভাবে জর্জিয়া অঙ্গরাজ্যের গভর্ণর নাথান ডিলও তার রাজ্যের ৬টি উপক’লীয় কাউন্টিতে জরুরী অবস্থা জারি করেছেন। এর আগেই পর্তোরিকোর গভর্ণর তার রাজ্যে জরুরী অবস্থা জারি করেন। প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পও ফ্লোরিডা, ইউএস ভার্জিন আইল্যান্ড এবং পর্তোরিকো রাজ্যে কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে জরুরী অবস্থা জারির পর সম্ভাব্য সব ধরনের সহযোগিতার নির্দেশ দিয়েছেন। দু’সপ্তাহ আগে ভয়ংকর হারিকেন হার্ভি আঘাত হানে টেক্সাসের বাংলাদেশী অধ্যুষিত হিউস্টন সিটিসহ আশপাশের এলাকায়। ক্ষত-বিক্ষত জনপদে চলছে পুনর্বাসন কার্যক্রম। এমনি অবস্থায় হারিকেন ইরমা ধেয়ে আসছে আটলান্টিক মহাসাগর থেকে যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্যসমূহে। ঘন্টায় ১৮৫ মাইল বেগে ক্যাটাগরি-৫ হিসেবে প্রবাহিত হচ্ছে এই হারিকেন। জাতীয় হারিকেন সেন্টার সর্বসাধারণের উদ্দেশ্যে আরো জানায়, ইরমা’র প্রভাবে উপক’লীয় অঞ্চলে ১৫ থেকে ২০ ফুট পর্যন্ত জলোচ্ছ্বাস হতে পারে। এমন ভয়ংকর দুর্যোগ সাউথ ফ্লোরিডায় আঘাত হানবে শনিবার রাতে। ন্যাশনাল ওয়েদার সার্ভিস আরো উল্লেখ করেছে, আটলান্টিক মহাসাগরে ‘হোযে’ এবং ‘ক্যাটিয়া’ নামক আরো দুটি হারিকেনের উৎপত্তি ঘটেছে। ২০১০ সালের পর এবারই প্রথম উপর্যুপরি হারিকেনের আবির্ভাব ঘটছে আটলান্টিক মহাসাগর থেকে। ফ্লোরিডাস্থ ৫২ দেশের ব্যবসায়ী-শিল্পপতিদের প্রতিনিধিত্বকারি ‘বাই-ন্যাশনাল চেম্বার অব কমার্স এসোসিয়েশন’র নির্বাহী ভাইস প্রেসিডেন্ট আতিকুর রহমান ৭ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার রাতে এনআরবি নিউজকে জানান, ‘হারিকেনের আতংকে সমস্ত মানুষ নিরাপদ আশ্রয়ে রওয়ানা দিয়েছে। গ্যাস স্টেশনে গ্যাস নেই। গ্রোসারি স্টোর ফাঁকা। বড় বড় স্টোর থেকে কাঠ ক্রয় করা হচ্ছে বাড়ি-ঘরের দরজা-জানালা শক্ত করে আটকিয়ে নিরাপদ স্থানে পাড়ি দেয়ার জন্যে।’ আতিকুর রহমান উল্লেখ করেন, ‘অনেকে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে নিজ বাসায় অবস্থানের কথা ভাবছেন। যদিও মায়ামী পুলিশের উপ-প্রধান লুইস ক্যাবরেরা সকলের প্রতি উদাত্ত আহবান জানিয়েছেন নিরাপত আশ্রয়ে স্বেচছায় চলে যাবার জন্যে। অন্যথায় পুুলিশ এসে সকলকে জোর করে নিয়ে যাবে আশ্রয় কেন্দ্রে।’ ৮ সেপ্টেম্বর শুক্রবার ভোর থেকেই ১৪০০ পুলিশ অফিসার মায়ামী সিটিতে নামবে সর্বসাধারণকে সর্বাত্মক সহায়তার জন্যে।’ বাংলাদেশী-আমেরিকান ব্যবসায়ী আতিক উল্লেখ করেন, ‘হারিকেনের ভয়াবহতা সকলেই আঁচ করতে পারলেও অনেকে সারাজীবনের স্মৃতি আঁকড়ে থাকতে চাচ্ছেন জীবনের ঝুঁকি নিয়েই।’
মায়ামী পুলিশের কমিশনার ফ্রাঙ্ক সুয়ারেজ বলেন, ‘সিটির যেসব এলাকাকে জনমানবশূন্য করার জন্যে চিহ্নিত করা হয়েছে, সে সবে কাউকেই থাকতে দেয়া হবে না। সর্বসাধারণের নিরাপত্তা বিধানের স্বার্থেই এই নির্দেশ বাস্তবায়িত করা হবে।’
মায়ামী-ডেড কাউন্টি মেয়র কার্লোজ জিমিনেজ বৃহস্পতিবার রাতে এক সংবাদ সম্মেলনে সর্বসাধারণের প্রতি আকুল আবেদন জানিয়েছেন, ‘সরকারী আশ্রয় কেন্দ্রে অথবা দূরবর্তী স্বজনের বাসায় চলে যান। হারিকেন ইরমাকে অবহেলার অবকাশ নেই। এটি ভয়ংকর রূপ নিয়ে সাউথ ফ্লোরিডাসহ আশপাশে আঘাত হানবে রোববার ভোর রাতে।’

 

0 Comments

Leave a Comment

সব খবর (সব প্রকাশিত)

লক্ষ্য করুন

প্রবাসের আরো খবর কিংবা অন্য যে কোন খবর অথবা লেখালেখি ইত্যাদি খুঁজতে উপরে মেনুতে গিয়ে আপনার কাংখিত অংশে ক্লিক করুন। অথবা ‌উপরেরর মেনু'র সর্বডানে সার্চ আইকনে ক্লিক করুন এবং আপনার খবর বা লেখার হেডিং এর একটি শব্দ ইউনিকোড ফন্টে টাইপ করে সার্চ আইকনে ক্লিক করুন। ধন্যবাদ।