Jan 17, 2018


বাংলা প্রেস, নিউ ইয়র্ক : প্রবাসে বেড়ে উঠা নতুন প্রজন্মকে দেশ ও মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস জানাতে সকল ভেদাভেদ ভুলে বিজয় দিবস, আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস ও স্বাধীনতা দিবসসহ বিভিন্ন জাতীয় দিবস উদযাপনে সকলকে এগিয়ে আসার আহবান জানিয়েছেন কানেকটিকাট অঙ্গরাজ্যের বাংলাদেশি আমেরিকান ফ্রেন্ডস সোসাইটি (বাফস)।গত সোমবার সন্ধ্যায় নিউ বৃটেনের একটি মিলনায়তনে বিজয় দিবেসের এক অনুষ্ঠানে বাফস-এর কর্মকর্তারা এ আহবান জানান। এ খবর দিয়েছে বার্তা সংস্থা বাংলা প্রেস।
আমেরিকান ফ্রেন্ডস সোসাইটির সভাপতি মোহাম্মদ আব্দুল হাসেমের সভাপতিত্বে এবং সাধারন সম্পাদক এম এ আজিজের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত উক্ত বিজয় দিবাসের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসে বক্তব্য দেন কানেকটিকাট বিশ্ববিদ্যালয়ে কবি কাজী নজরুল চেয়ার প্রতিষ্ঠার প্রধান উদ্যোক্তা ও বিশিষ্ট নজরুল গবেষক ড. গুলশান আরা কাজী। তিনি তাঁর বক্তব্যে ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের একটি ঘটনা স্মৃতিচারন করেন।
তিনি বলেন, ডিসেম্বর মাস অত্যন্ত একটি গুরত্বপুর্ণ মাস। এ মাসেই আমরা বিজয় অর্জন করেছি।এ মাসেই আমরা কাজী নজরুল চেয়ার প্রতিষ্ঠার জন্য ঐতিহাসিক যাত্রা শুরু করেছি।
নজরুল গবেষক গুলশান আরা বলেন, কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্বের সকল বাঙালিদের গর্ব। তাই তাঁর নামে কানেকটিকাট বিশ্ববিদ্যালয়ে চেয়ার প্রতিষ্ঠার জন্য যুক্তরাষ্ট্রের জাতিসংঘের বাংলাদেশ মিশনসহ বিভিন্ন সংস্থা সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন। নজরুলকে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে দেয়ার লক্ষ্যে প্রবাসী কানেকটিকাটবাসীদেরও এগিয়ে আসার আহবান জানান তিনি।
আমেরিকান ফ্রেন্ডস সোসাইটির সভাপতি মোহাম্মদ আব্দুল হাসেম বলেন, প্রবাসে দেশের সংস্কৃতির চর্চা অব্যাহত রাখার ধারাবাহিকতায় বাফস বিজয় দিবস পালনের উদ্যোগ গ্রহন করে। প্রবাসে এসেও নিজেদের স্বার্থে বিভিন্ন সংগঠনের নেতৃত্বের জন্য ক্ষমতার লোভে আমরা দিশেহারা হয়ে পড়ি। এর ফলে আমাদের ছেলে-মেয়েরা দেশ ও মুক্তিযুদ্ধ সম্পর্কে সঠিক ধারনা অর্জন থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।
তিনি আরও বলেন, গত দু’বছর আগে ২০১৫ সালের ২৫ ডিসেম্বর বাংলাদেশি আমেরিকান ফ্রেন্ডস সোসাইটি (বাফস) নামে এই সংগঠনটি গঠন করা হয়।হাটিহাটি পা পা করে দু’বছর অতিক্রম করেছে এ সংগঠনটি। আগামি দিনেও বাফসের ডাকে সকলেই একইভাবে সাড়া দেবেন আগত অতিথিদের ধন্যবাদ জানান তিনি।
অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন সাধারন সম্পাদক এম এ আজিজ, বিজয় দিবস উদযাপনের সকল প্রস্তুতি কমিটির আহবায়ক মোঃ হুমায়ুন কবির, যুগ্ম আহবায়ক মোঃ আলমগীর কবির লাভলু ও মোহাম্মদ রহমান রাজু প্রমুখ।
কানেকটিকাটের ঐতিহ্যবাহী ও পুরানো সংগঠন বাংলাদেশি আমেরিকান অ্যাসোশিয়েশন অব কানেকটিকাট (বাক) দ্বিধাবিভক্ত দু’গ্রুপের কর্মকর্তাসহ বিভিন্ন শ্রেনীপেশার মানুষ মানুষ উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।
যাদের সার্বিক সহযোগিতা বিজয় দিবস উদযাপন সফল হয়েছে তারা হলেন: মোহাম্মদ আব্দুল হাসেম, মোহাম্মদ রহমান রাজু, মোহাম্মদ মনসু্‌র, মোহাম্মদ আরজু, এম এ আজিজ, মোহাঃ হুমায়ুন কবির, মোহাঃ হুমায়ুন কবির লাবলু, আমিনুল ইসলাম, মহিউদ্দিন এম চৌধুরী, মোহাম্মদ এম কবির, মোহাঃ এম হোসেন, মোহাঃ এস চৌধুরী, এসএমএ রহমান, মোহাঃ আর আলম, মোহাম্মদ হোসেন স্বপন, একেএম উদ্দিন মেসবাহ, মোহাঃ নবী, মোহাঃ ইসলাম,মোহাঃ রহিম, মাসুদ রানা, আরিফুল ইসলাম, মোহাঃ হোসেন মিলন, শাহ আলম, আমজাদ আজাদ ও শরিফুল ইসলাম প্রমুখ।
দু’দেশের জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশনের মধ্য দিয়ে শুরু হওয়া উক্ত অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে ছিল এক আকর্ষনীয় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এতে সঙ্গীত পরিবেশন করেন নিউ ইয়র্ক প্রবাসী জনপ্রিয় শিল্পী তনিমা হাদী, খায়রুল ইসলাম সবুজ, কৌশলী ইমা ও রুপা আলমগীর। শিল্পীদের যন্ত্রসঙ্গীতে সঙ্গত করেন কী-বোর্ডে রিপন ও অক্টোপ্যাডে রিড জামান।
শেষে র‍্যাফেল ড্র’র মাধ্যমে উপস্থিত অতিথিদের জন্য ৮টি পুরুস্কার প্রদান করা হয়।

0 Comments

Leave a Comment

বিজ্ঞাপন

পাঠকের মন্তব্য

বিজ্ঞাপন

লক্ষ্য করুন

প্রবাসের আরো খবর কিংবা অন্য যে কোন খবর অথবা লেখালেখি ইত্যাদি খুঁজতে উপরে মেনুতে গিয়ে আপনার কাংখিত অংশে ক্লিক করুন। অথবা ‌উপরেরর মেনু'র সর্বডানে সার্চ আইকনে ক্লিক করুন এবং আপনার খবর বা লেখার হেডিং এর একটি শব্দ ইউনিকোড ফন্টে টাইপ করে সার্চ আইকনে ক্লিক করুন।
ধন্যবাদ।

বিজ্ঞাপন